শনিবার, ১৫ জুন ২০২৪, ০৮:২৬ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম:
চুনারুঘাটে ৬ বছরের ব্যবধানে দুই ভাইকে হত্যা ॥ গ্রেপ্তার ৩ ঈদ উল আযহা উপলক্ষে পৌর এলাকার ইমাম-মুয়াজ্জিনদের সম্মানী ভাতা প্রদান বানিয়াচং হাসপাতালে অনিয়ম দুর্নীতির প্রতিবাদে মানববন্ধন চুনারুঘাটে চেয়ারম্যান পদে সৈয়দ লিয়াকত হাসানের চমক ॥ কাইয়ূম ও খাইরুন ভাইস চেয়ারম্যান নির্বাচিত সিলেট ওসমানী হাসপাতালে পানি ঢুকে চরম দুর্ভোগ মিরপুরে এনা বাসের চাপায় শিশু নিহত ॥ সড়ক অবরোধ শায়েস্তাগঞ্জ উপজেলায় চেয়ারম্যান ইকবাল ॥ ভাইস চেয়ারম্যান আফজল ও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান ডলি নির্বাচিত বাহুবলে বিদ্যুৎ স্পৃষ্টে শিশু নিহত আগামীকাল ৩ উপজেলায় ভোট গ্রহণ ॥ প্রস্তুতি সম্পন্ন ব্যারিস্টার সৈয়দ সায়েদুল হক সুমন এমপির বিরুদ্ধে আচরণবিধি ভঙ্গের অভিযোগ

বানিয়াচং হাসপাতালে যুব‌কের লাশ রেখে পলায়ন

Reporter Name
  • আপডেট টাইম : সোমবার, ২৭ জুলাই, ২০২০
  • ২৬৭ বার পঠিত

দেলোয়ার হোসেন, বা‌নিয়াচং প্রতিনিধিঃ হবিগঞ্জের বানিয়াচংয়ে হাসপাতালে লাশ রেখে পালিয়ে যাওয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে। রবিবার ২৬জুলাই দুপুর ১২টায় বানিয়াচং স্বাস্থ্যকমপ্লেক্সে এ ঘটনাটি ঘটেছে। নিহত ব্যাক্তির নাম আবিদ মিয়া (২৫)। সে ৪ নম্বর দক্ষিন-পশ্চিম ইউনিয়নের যাত্রপাশা গ্রামের মকবুল হোসেনের পুত্র। ২সন্তানের জনক আবিদ মিয়া পাওয়ার টিলারের চালক। এলাকাবাসী ও নিহতের পরিবার জানান, রবিবার সকালে একই ইউনিয়নের তারাসই গ্রামের মতলিব মিয়ার বাড়িতে যান আবিদ মিয়া। পরবর্তীতে অসুস্থ অবস্থায় আবিদ মিয়াকে বানিয়াচং স্বাস্থ্যকমপ্লেক্সে নিয়ে আসেন মতলিব মিয়া ও তার লোকজন। কিন্তু পথিমধ্যেই আবিদ মিয়া মারা যাওয়ায় , লাশ হাসপাতালে রেখেই মতলিব মিয়া ও তার লোকজন পালিয়ে যান। এ ব্যাপারে নিহত আবিদ মিয়ার বড় ভাই আযাদ মিয়া জানান, আমরা হাওরে কাজে ছিলাম। জানিনা, আমার ভাইয়ের সাথে কি হয়েছে। মতলিব মিয়ার নিকট আমার ভাইয়ের টাকা পাওনা ছিল। এ ব্যপারে বানিয়াচং স্বাস্থ্যকমপ্লেক্সের ইউএইচও আবুল হাদী মোঃ শাহপরান জানান, নিহত ব্যাক্তিকে হাসপাতালে নিয়ে আসার পূর্বেই মারা গিয়েছিলেন। সে হিসেবে মৃত্যুর কারন ময়না তদন্ত ছাড়া বলা যাচ্ছেনা।
এ ব্যপারে বানিয়াচং থানার অফিসার ইনচার্জ এমরান হোসেন বলেন, প্রথমিকভাবে আমরা ধারনা করছি নিহত ব্যাক্তি বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে থাকতে পারেন। ময়নাতদন্ত ছাড়া মৃত্যুর সঠিক কারন বলা যাবেনা।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

© All rights reserved © 2019 Prothomsheba
Theme Developed BY ThemesBazar.Com