শুক্রবার, ২৭ জানুয়ারী ২০২৩, ০৩:৫৪ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম:
গ্রেড-১ পাচ্ছেন অতিরিক্ত আইজিপি কামরুল আহসান চুনারুঘাটে মাদক মামলার দুই সাজাপ্রাপ্ত আসামি গ্রেফতার দেড় হাজার পিস ইয়াবাসহ চুনারুঘাটে দুই কারবারি আটক চুনারুঘাটে উন্নয়নমূলক কাজের ভিত্তি প্রস্তর স্থাপন করলেন-প্রতিমন্ত্রী মাহবুব আলী চুনারুঘাটে সাবেক ছাত্রলীগ নেতার কবর জিয়ারত করলেন প্রতিমন্ত্রী আইন শৃঙ্খলা রক্ষায় কাউকেই ছাড় দেয়া হবেনা- মাধবপুর সার্কেল এএসপি নির্মলেন্দু সংকট এড়াতে খাদ্য উৎপাদন বাড়ান : প্রধানমন্ত্রী সংকট এড়াতে খাদ্য উৎপাদন বাড়ান : প্রধানমন্ত্রী মহাসড়কের পাশের শতাধিক অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ চুনারুঘাটে দিনব্যাপী ডিজিটাল উদ্ভাবনী মেলা সম্পন্ন

মাধবপুরে ত্রাণ না পেয়ে কষ্টে দিন কাটাচ্ছে ভিক্ষুক কাসেম আলী

Reporter Name
  • আপডেট টাইম : শুক্রবার, ১০ এপ্রিল, ২০২০
  • ১৮৯ বার পঠিত

শেখ জাহান রনি, মাধবপুর: হবিগঞ্জের মাধবপুর আদাঐর ইউনিয়নে ত্রাণ না পেয়ে কষ্টে জীবন যাপন করছে এক ভিক্ষুক কাসেম আলী।

শুক্রবার ১০ এপ্রিল মাধবপুর উপজেলার আদাঐর ইউনিয়ন গ্রামের লোকনাথ উচ্চ বিদ্যালয়ের পাশে পশ্চিম পাড়ার বাসিন্দা মৃত আরজু মিয়ার ছেলে কাসেম আলী (৬০) ত্রাণ না পেয়ে না খেয়ে জীবন যাপন করতে হচ্ছে ও মানুষের বাড়ি বাড়ি ছুটছেন একটু খাবারের আশায়।

পৌরসভা ৪নং ওয়ার্ডের বাসিন্দা বোরহান উদ্দিন খাঁন রুবেল জানান, কাসেম আলী (৬০) ভিক্ষুক আমার বাসাতে আজ সকাল ১১:২০ মিনিটে আসে ভিক্ষার জন্য তাহাকে জিজ্ঞেস করি আপনি এই মহামারি করোনায় ঘর থেকে বের হলেন কেন আপনি কি সরকারের দেয়া ত্রাণ পাননি, কাসেম আলী বলল আমাকে চেয়ারম্যান,মেম্বার কেউ কোন ত্রাণ দেয় নাই, এই কথা শুনে রুবেল ওই ভিক্ষুকে ভাত খাওয়ালেন এবং কিছু সাহায্য করেন।
তিনি আরও বলেন যারা ত্রাণ বা বিভিন্ন ধরনের খাদ্যসামগ্রী বিতরণে নিয়োজিত আছেন তাদের দৃষ্টি আকর্ষণ করতেছি; আপনারা এই অসহায় মানুষটার দিকে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিন।

ভিক্ষুক কাসেম আলী বলেন, করোনা আসার পর থেকে আমাদের গজব শুরু হয়েছে। মানুষের বাসাবাড়িতে গিয়ে ভিক্ষা করে করে জীবন চলত। এক সপ্তাহ ধরে কারাও বাড়িতে যেতে পারি না করোনার কারণে চলাফেরা বন্ধ। শুনতেছি বিভিন্ন জায়গায় ত্রাণ দেয়। কিন্তু আমাদের মহল্লার কেউ তো পেল না।আমার এক ছেলে আছে সে প্রতিবন্ধী কথা বলতে পারে না খুব কষ্ট করে চলছি আমরা।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..

Leave a Reply

Your email address will not be published.

© All rights reserved © 2019 Prothomsheba
Theme Developed BY ThemesBazar.Com