শুক্রবার, ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০৩:৩৪ অপরাহ্ন

অর্ধশত মামলার পলাতক আসামী কুখ্যাত মাদক সম্রাট আব্দুর রউফ ইয়াবাসহ গ্রেফতার

Reporter Name
  • আপডেট টাইম : মঙ্গলবার, ২৯ জানুয়ারী, ২০১৯
  • ৪৯৫ বার পঠিত

নুর উদ্দিন সুমন হবিগঞ্জ॥ হবিগঞ্জের চুনারুঘাট অর্ধশত মামলার পলাতক আসামী কুখ্যাত মাদক সম্রাট দীর্ঘ ৫বছর পলাতক থাকার পর অবশেষে চুনারুঘাট থানা পুলিশ ৫৫ পিছ ইয়াবাসহ গ্রেফতার করেছে। সোমবার গভীর রাতে ওসি কেএম আজমিরুজ্জামান এর নির্দেশনায় ওসি(তদন্ত) আলী আশরাফ এবং এসআই সজীব দেব রায় নেতৃত্বে শাকিল, সুমন, আল আব্দুল্লাহ কবির মাহী,সবুজ চন্দ্র দে,সরুপসহ সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে গোপন সংবাদর বিত্তিতে উপজেলার সদর ইউনিয়নের ইকরা ব্রিকফিল্ড এলাকায় মাদক পাচারকালে আব্দুর রউফ (৩০)কে গ্রেফতার করা হয়। থানা সূত্রে জানায় তার বিরুদ্ধে সুনামগঞ্জ এর ছাতক থানায়, হবিগঞ্জের বাহুবল, চুনারুঘাট মামলা থাকলেও পুলিশের চোখকে ফাঁকি দিয়ে মাদক ব্যবসা চালিয়ে আসছিল। আব্দুর রউফ চুনারুঘাট বাহুবল সুনামগঞ্জ থেকে দীর্ঘদিন ধরে তার মাধ্যমে মাদক ব্যবসা অব্যাহত থাকায় এলাকায় নিত্যদিন বেড়ে চলছিল নানা অপরাধ। এতে স্থানীয় জনগণ ও জনপ্রতিনিধিরা উদ্ধিগ্ন হয়ে পড়েন। এদিকে মাদকের গডফাদার বহু অপকর্মের হোতা আব্দুর রউফ গ্রেফতারে স্বস্তি ফিরে এসেছে এলাকায়। তার গ্রেফতারে এলাকাবাসী প্রশাসনকে ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন। এবং এখন থেকে মাদকের হাট বন্ধ হবে বলে মনে করেন উপজেলার মানুষ। এবিষয়ে মাদক সম্রাট আব্দুর রউফ জানায় সে আর ব্যবসা করবেনা জেল থেকে মুক্তি হলে ব্যবসা ছেড়ে দিবে। স্থানীয় এলাকাবাসীর অভিযোগ, আব্দুল রউফের মাদকের চালান গ্রামগঞ্জে সর্বত্র ছড়িয়ে পড়ায় এসব মাদক হাতের নাগালে পেয়ে ধ্বংসের ধারপান্তে পতিত হচ্ছে যুব সমাজ। মাদক সেবন করতে গিয়ে অনেক কিশোর, তরুণ জড়িয়ে পড়েছে বিভিন্ন অপরাধে। চুনারুঘাট বাল্লা সীমান্ত সীমা রেখায় অবস্থিত হওয়ায় মাদকের বিভিন্ন আখঁড়ায় পাচার করছে তার নেতৃত্বে মহলটি এমন তথ্যও ছিল পুলিশের নিকট। মাঝেমধ্যে এসব মাদকের চালান পুলিশ ও র‌্যাবের হাতে আটক হয়েছে। মাদকের গডফাদার ও অর্ধ শতাধিক মামলার আসামী আব্দুর রউফ মাদকসহ পুলিশ ও র‌্যাবের হাতে কয়েকবার হাতেনাতে গ্রেফতার হয়ে কারাভোগের পর জামিনে বের হয়ে আসলে ফের নির্ভয়ে প্রকাশ্যে মাদকদ্রব্য বেচাকেনা করে আসছিল। এবার এলাকাবাসীর একটাই দাবী তাকে যাহাতে জামিন না দেয়া হয়। তাহলে মাদকের হাত থেকে বাচতে পারবে এলাকার যুব সমাজ। মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই সজীব দেব রায় বলেন, কুখ্যাত মাদক সম্রাট আব্দুর রউফকে গ্রেফতার করতে র‌্যাব ডিবি আমাদের অনেক অফিসার তাকে গ্রেফতার করতে চেষ্টা করেছেন। আমি দীর্ঘদিন যাবত আব্দুর রউফকে গ্রেফতার করতে অনুসন্ধ্যানে মাঠে কাজ করে আসছিলাম। অবশেষে এসপি ও ওসি স্যারের দিক নির্দেশনায় আব্দুর রউফকে গ্রেফতার করতে সক্ষম হয়েছি। সেটা আমার চাকুরী জীবনের বড় সাফল্য।আমি তাকে গ্রেফতার করতে পেরে খুবই আনন্দিত। আব্দুর রউফ এরমত চিহ্নত মাদক ব্যবসায়ীরে ধরতে আমরা মাঠে কাজ করছি। চুনারুঘাট থানার ওসি আজমিরুজ্জামান বলেন আব্দুর রউফের বিরুদ্ধে চুনারুঘাট থানায় ১৩টি মামলা ৭টি ওয়ারেন্ট রয়েছে। এছাড়াও দেশের সুনামগঞ্জ বি-বাড়ীয়া, মৌলভীবাজারসহ বিভিন্ন থানায় ৩০টিরও বেশি চুরি ছিনতাই, ডাকাতির অবিযোগ আছে। এর মধ্যে আনেক মামলা চলমান রয়েছে। মাদক ব্যবসার ব্যাপারে কোন ছাড় নেই। চিহ্নিত মাদক ব্যবসায়ীদের গ্রেফতার করতে পুলিশ অভিযান অব্যাহত রয়েছে।নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একাধিক স্থানীয় ভোক্তভোগিরা জানান থানা ও আদালতে মামলা দায়ের করলে তাদের উপর নেমে আসে নির্যাতন। এজন্য আব্দুর রউফের বিরোদ্ধে কেহ মুখ খুলতে সাহস পায়না।আব্দুর রউফ উপজেলার সাটিয়াজুরী ইউনিয়নের পনারগাও গ্রামের মৃত আব্দু ছত্তারের ছেলে।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..

Leave a Reply

Your email address will not be published.

© All rights reserved © 2019 Prothomsheba
Theme Developed BY ThemesBazar.Com