শনিবার, ১২ অক্টোবর ২০১৯, ০৮:৪০ অপরাহ্ন
শিরোনাম:
চুনারুঘাটের পানছড়ি পাহাড়ের টিলা কেটে অবৈধ বালু উত্তোলন চুনারুঘাট এসিল্যান্ডের অভিযানে ৮টি ড্রেজার মেশিন পুড়িয়ে ধ্বংস চুনারুঘাটে তুচ্ছ ঘটনা নিয়ে দুপক্ষে সংঘর্ষে আহত ৫ ফদ্রখলা রাস্তার বেহাল দশা” সুনজর নেই! ১০ গ্রাম মানুষের চরম দূর্ভোগ এমপি আবু জাহির-এর সাথে জেলা সাংবাদিক ফোরামের নব-নির্বাচিত কমিটির সাক্ষাত বাহুবলে ৭টি দূর্গামন্দির উন্নয়নে ১ লাখ ৪৫ হাজার টাকা অনুদান প্রদান চুনারুঘাটে সৃজনশীল মেধাবিকাশের মানববন্ধনে উত্তাল জনতার সম্মিলিত প্রতিবাদ চুনারুঘাটে অন্তঃসত্ত্বা হওয়ায় চাপে পড়ে শ্বাসরোধে হত্যা॥ হত্যার বর্নণা দিয়েছে ঘাতক প্রেমিক মাধবপুরে গাঁজাসহ ২ মাদক ব্যবসায়ীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ বাহুবলে পানিতে ডুবে শিশুর মৃত্যু

বাহুবলে পুলিশ-শ্রমিক সংঘর্ষের ঘটনায় ৩শ জনের বিরুদ্ধে মামলা ॥ গ্রেফতার ৫

Reporter Name
  • আপডেট টাইম : শনিবার, ২৮ সেপ্টেম্বর, ২০১৯
  • ৬ বার পঠিত

স্টাফ রিপোর্টারঃ বাহুবলে পুলিশ-শ্রমিক সংঘর্ষের ঘটনায় ৩শ লোককে আসামী করে থানায় একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার রাতে শায়েস্তাগঞ্জ হাইওয়ে থানার এসআই কবির হোসেন বাদী হয়ে ৬৫ জনের নাম উল্লেখসহ ২শ ৫০ জনকে অজ্ঞাত আসামী করে বাহুবল মডেল থানায় একটি মামলা দায়ের করেছেন। এ পর্যন্ত উক্ত মামলায় ৫ সিএনজি অটোরিকশা শ্রমিককে গ্রেফতার করা হয়েছে। গ্রেফতারকৃতরা হলো উপজেলার যশপাল গ্রামের আলী হোসেনের ছেলে জয়নাল আবেদীন (২৬), তিতারকোণা গ্রামের খুর্শেদ আলীর ছেলে শাহ আলম (২৭), সুতীন লাল টিলা গ্রামের ছুরুক মিয়ার ছেলে ফজর আলী (৪০), ভৈরবীকোনা গ্রামের অনু মিয়ার ছেলে শফিক মিয়া (২৬) ও কর্মবাদ গ্রামের খুর্শেদ আলমের ছেলে আশিক মিয়া (২৬)। উল্লেখ্য, ঢাকা-সিলেট মহাসড়কে সিএনজি অটোরিকশা চলাচলে হাইকোর্টের নির্দেশ অনুযায়ী বাহুবল এলাকায় বেশ কিছুদিন ধরে জোড়ালোভাবে বাঁধা দিয়ে আসছিল হাইওয়ে থানা পুলিশ। এরই ধারাবাহিকতায় বৃহস্পতিবার দুপুরে উপজেলার মিরপুর বাজারের বিশ্বরোড পয়েন্টে একটি সিএনজি অটোরিকশাকে আটক করে থানায় নিয়ে যাচ্ছিল হাইওয়ে পুলিশ। সিএনজি অটোরিকশা আটকের খবরটি মুহূর্তেই স্থানীয় শ্রমিকদের মাঝে জানাজানি হলে শ্রকিকরা জড়ো হয়ে পুলিশের কাছ থেকে সিএনজি অটোরিকশা ছাড়িয়ে নিতে গিয়ে শ্রমিক-পুলিশ সংঘর্ষ বাঁধে। এতে ৭ পুলিশ সদস্য সহ অন্তত ২০ জন আহত হন। এক পর্যায়ে হাইওয়ে পুলিশ ৮ রাউন্ড ফাঁকা গুলি ছুড়ে ঘটনাস্থল ত্যাগ করে আহতদের চিকিৎসা দিতে হবিগঞ্জ আধুনিক সদর হাসপাতালে নিয়ে যায়। বাহুবল মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ মোহাম্মদ কামরুজ্জামান মামলার বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, এখন পর্যন্ত ৫ জন আসামী গ্রেফতার করে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে। বাকী আসামীদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

© All rights reserved © 2019 Prothomsheba
Theme Developed BY ThemesBazar.Com