সোমবার, ২২ জুলাই ২০১৯, ০১:০৬ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম:
চুনারুঘাট প্রেসক্লাব সভাপতির সাথে সমতা খাতুনের সৌজন্য সাক্ষাত আগামীকাল সোমবার থেকে সারাদেশে বজ্রসহ বৃষ্টিপাত ১৮ লাখ টাকার প্রতারণা মামলায় এক ব্যক্তি শহরে গ্রেফতার নবীগঞ্জে স্কুল ছাত্রীকে কুপিয়ে হত্যার চেষ্টা ॥ দুই বখাটে আটক চুনারুঘাটের বন্যাদুর্গত এলাকায় ত্রাণ বিতরন করলেন জেলা প্রশাসক চুনারুঘাটে ৩ দিন ব্যাপী কৃষি প্রযুক্তি মেলার উদ্বোধন ও আলোচনা সভা লন্ডনে পৌঁছেছেন প্রধানমন্ত্রী, আজ দূত সম্মেলন বাংলাদেশ নিয়ে ট্রাম্পের কাছে মিথ্যা বক্তব্য দেয়ায় ॥ প্রিয়া সাহার বিরুদ্ধে রাষ্ট্রদ্রোহের মামলা করবেন ব্যারিস্টার সুমন খোয়াইসহ হবিগঞ্জের সকল নদ নদীর সমস্যা সমাধান হবে-পানি সম্পদ প্রতিমন্ত্রী নবীগঞ্জে অজ্ঞান অবস্থায় কিশোর উদ্ধার ॥ নবীগঞ্জ শহরজুড়ে আতঙ্ক

বিদ্যুৎ ও জ্বালানী খ্যাতে বিনিয়োগ করতে আগ্রহ সৌদিআরব

Reporter Name
  • আপডেট টাইম : শনিবার, ৪ মে, ২০১৯
  • ২৪ বার পঠিত

মোঃ মিজানুর রহমান, সৌদিআরব  থেকে সংবাদদাতা ঃ  সৌদি আরবের রাষ্ট্রায়ত্ত্ব তেল-গ্যাস ও পেট্রোলিয়াম কোম্পানি সৌদি আরামকো এবং অ্যাকওয়া পাওয়ার বাংলাদেশে বিদ্যুৎ ও জ্বালানি খাতে বিনিয়োগ করতে আগ্রহ প্রকাশ করেছে। মঙ্গলবার বাংলাদেশ বিনিয়োগ উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের (বিডা) নির্বাহী চেয়ারম্যান কাজী মোঃ আমিনুল ইসলামের সাথে বিডা কার্যালয়ে সৌদি আরামকো এবং অ্যাকওয়া পাওয়ারের একটি যৌথ প্রতিনিধিদল সাক্ষাৎকালে এ আগ্রহের কথা প্রকাশ করে। সৌদি আরামকোর বিজনেস ডেভেলপমেন্ট ম্যানেজার জুলিও সি হ্যাসেলমেয়ার মোজেস এবং অ্যাকওয়া পাওয়ারের বিজনেস ডেভেলপমেন্ট ডিরেক্টর আইয়্যাদ আল-আমরি জানান, কোম্পানিদ্বয় যৌথ উদ্যোগ ও বিনিয়োগে বাংলাদেশে ৫০০ মেগাওয়াট ক্ষমতাসম্পন্ন নবায়নযোগ্য জ্বালানি সৌরবিদ্যুৎ এবং এলএনজি (তরলীকৃত প্রাকৃতিক গ্যাস) উৎপাদন ও সরবরাহ করতে আগ্রহী। সম্প্রতি সৌদি আরবের বাণিজ্য ও বিনিয়োগ বিষয়ক মন্ত্রী এবং অর্থ ও পরিকল্পনামন্ত্রীর নেতৃত্বে উচ্চ পর্যায়ের প্রতিনিধিদলের সফরের ধারাবাহিকতায় এই দুটি কোম্পানির প্রতিনিধিবৃন্দ বাংলাদেশ সফর করেন এবং বিনিয়োগের আশা ব্যক্ত করেন। জুলিও সি হ্যাসেলমেয়ার মোজেস বলেন, ‘গত কয়েক বছরে যোগাযোগ ও পরিবহণ, বিদ্যুৎ, জ্বালানি, তথ্যপ্রযুক্তি প্রভৃতি খাতের দ্রুত উন্নয়নের ফলে বাংলাদেশে এখন বিনিয়োগের অত্যন্ত সুবিধাজনক পরিবেশ বিরাজ করছে। এরই ধারাবাহিকতায় আমরা বাংলাদেশে বিনিয়োগ করতে আগ্রহী।’ কাজী মোঃ আমিনুল ইসলাম বলেন, ‘বাংলাদেশ সরকার বিনিয়োগবান্ধব, শ্রমিক সহজলভ্য এবং অর্থনীতি স্থিতিশীল। ‘ডেমোগ্রাফিক ডিভিডেন্ড’ এর বদৌলতে আগামী ২৫-৩০ বছর বাংলাদেশের জনসংখ্যায় কর্মক্ষম যুবকের আধিক্য থাকবে, ফলে আরও দীর্ঘদিন বাংলাদেশের শ্রমবাজার সহজলভ্য থাকবে। তিনি একটি বন্ধুপ্রতীম রাষ্ট্র হিসেবে সৌদি আরবের এই দুই কোম্পানিকে স্বাগত জানান এবং বিডার পক্ষ থেকে সর্বাত্মক সহায়তার আশ্বাস দেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

© All rights reserved © 2019 Prothomsheba
Theme Developed BY ThemesBazar.Com